শুক্রবার,২২শে জুন, ২০১৮ ইং, ৮ই আষাঢ়, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ৮ই শাওয়াল, ১৪৩৯ হিজরী

 
 

রেকর্ড নাকি গৌরবের পতন, কি ঘটবে আজ

 

আর মাত্র কয়েক ঘণ্টা। এরপরই শুরু হচ্ছে ২০১৮ রাশিয়া বিশ্বকাপ। বৃহস্পতিবার (১৪ জুন) বাংলাদেশ সময় রাত ৯টায় রাশিয়ার সবচেয়ে বড় ভেন্যু মস্কোর লুঝনিকি স্টেডিয়ামে শুরু হবে রাশিয়া ও সৌদি আরবের মধ্যকার উদ্বোধনী ম্যাচ।

দুই দলের লড়াইয়ে স্বাভাবিকভাবেই সকলের মনোযোগ থাকবে স্বাগতিকদের পারফরমেন্সের ওপর। উদ্বোধনী এই ম্যাচে গৌরব ধরে রাখার কঠিন এক চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি রাশিয়া। অন্যদিকে সৌদি আরবের সামনে রেকর্ডের হাতছানি।

আজ সৌদি জিতলে তাদের রেকর্ড যেমন সমৃদ্ধ হবে তেমন ভেঙ্গে যাবে বিশ্বকাপের ৮৮ বছরের আরেকটি ইতিহাস। উদ্বোধনী ম্যাচে এখন পর্যন্ত কোনো স্বাগতিক দল হার নিয়ে মাঠ ছাড়েনি।

রাশিয়ার সামনে এখন সেই গৌরব ধরে রাখার চ্যালেঞ্জ। আর তাই জয় না হোক অন্তত ড্র করতে চাইবে স্বাগতিকরা। কেননা ড্র করলেও অটুট থাকবে আগের আসরগুলোর রেকর্ড।

বুধবার আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে সৌদি আরবের কোচ হুয়ান অ্যান্থনি পিজ্জি বলেছেন, তারা গ্যালারির দর্শকের উচ্ছ্বাসটা থামিয়ে দিতে চান।

অন্যদিকে রাশিয়ার কোচ স্তানিস্লাভ চেরিসভ বলেছেন, ‘লুঝনিকি স্টেডিয়ামের সমর্থন জানাবে আমাদের। এক ম্যাচ জিতলে সব চিত্রই বদলে যাবে। ফুটবলে সব কিছুই সম্ভব। আমরা দর্শকদের আনন্দ দিতে চাই।’

২০০৬ সালের পরে আবারো বিশ্বকাপের আসরে ফিরেছে সৌদি আরব। গত চারবারের ( ১৯৯৪, ১৯৯৮, ২০০২, ২০০৬) অংশগ্রহণে তেমন কোনো সফলতা নেই তাদের। নিজেদের প্রথম বিশ্বকাপে তারা দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠলেও সেখানেই শেষ হয় তাদের বিশ্বকাপ স্বপ্ন।

কিন্তু এবার অনন্য এক ইতিহাসের মাধ্যমে সবার মনে জায়গা করে নিতে যাচ্ছে দেশটি। বিশ্বকাপ ইতিহাসে প্রথম কোন এশিয়ান দেশ হিসেবে উদ্বোধনী ম্যাচেই মাঠে নামার সুযোগ হচ্ছে সৌদি আরবের।

অন্যদিকে, ১৯৫৮ সালে বিশ্বকাপের যাত্রা শুরু হয়েছিলো তৎকালীন সোভিয়েত ইউনিয়নে। এখন পর্যন্ত ১০টি বিশ্বকাপ খেলেছে রাশিয়া। তবে, ১৯৫৮ বিশ্বকাপে চতুর্থ স্থান এখন পর্যন্ত বিশ্বকাপে সেরা সাফল্য তাদের।

তবে, এবার নিজেদের মাটিতে বিশ্বকাপ নিয়ে আশায় বুক বেঁধেছে রাশিয়ানরা। বিশ্বকাপের জন্য স্তানিস্লভ চেরেশভের অধীনের ২০১৬ সাল থেকে চলছে বিশ্বজয়ের প্রস্তুতি।

আজকে

  • ৮ই আষাঢ়, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
  • ২২শে জুন, ২০১৮ ইং
  • ৮ই শাওয়াল, ১৪৩৯ হিজরী
 

সোশ্যাল নেটওয়ার্ক

 

Express News

 
 
 
প্রধান সম্পাদকঃ এম এ জাহান। চেয়ারম্যানঃ ছিদ্দিকুর রহমান।
উপদেষ্টাঃ আঃ বাছিদ আছিদ। পরিচালনায়ঃ আবুবকর ছিদ্দিক।
পৃষ্ঠপোষকঃ আঃ জলিল ভূইয়া।
সিনিয়র রিপোর্টারঃ মোঃ জিয়াউর রহমান,মোঃ ইউছুপ মনির ,মোঃ হারুনুর রশিদ,রাসেল আহাম্মেদ,এ এস হিরু,মোঃ শুকুর আলী,এস আর সাইফুল।